Latest news

আনসার-ভিডিপির ১০ দিন মেয়াদী মৌলিক প্রশিক্ষণের সার্টিফিকেট ও টাকা তুলে দেন রাজশাহী বিভাগের পরিচালকগণ প্রশিক্ষণার্থীদের হাতে

রবিবার, ১৮ অক্টোবর ২০২০ | ৯:৪৯ পূর্বাহ্ণ | 312 বার

আনসার-ভিডিপির ১০ দিন মেয়াদী মৌলিক প্রশিক্ষণের সার্টিফিকেট ও টাকা তুলে দেন রাজশাহী বিভাগের পরিচালকগণ প্রশিক্ষণার্থীদের হাতে
অস্ত্রবিহীন দশদিন গ্রাম ভিত্তিক মৌলিক প্রশিক্ষণ শেষে সার্টিফিকেট ও টাকা বিতরণ

রাজশাহী মোহনপুরে গ্রাম ভিত্তিক অস্ত্র বিহিন ভিডিপি মৌলিক প্রশিহ্মণের সমাপনী অনুষ্ঠান।

“শান্তি শৃঙ্খলা উন্নয়ন নিরাপত্তায় সর্বত্র আমরা” এ প্রতিপাদ্য বিষয়কে সামনে রেখে

রাজশাহী মোহনপুরে গ্রাম ভিত্তিক অস্ত্র বিহিন ভিডিপি মৌলিক প্রশিহ্মণের সমাপনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে।

#

অস্ত্রবিহীন দশদিন মৌলিক প্রশিক্ষণার্থীরা।

গত (১৫ অক্টোবর) বৃহস্পতিবার উপজেলার ধুরইল ইসলামিয়া বালিকা দাখিল মাদ্রাসায় উপজেলা আনসার ও ভিডিপি কার্যালয় মোহনপুর, রাজশাহীর আয়োজনেঃ গ্রাম ভিত্তিক অস্ত্র বিহিন ভিডিপি দশ দিনের মৌলিক প্রশিহ্মণ শেষ হলো।

সভায় উপস্থিত ছিলেন, শাহ আহমেদ ফজলে রাব্বী, পরিচালক আনসার ও ভিডিপি রাজশাহী রেঞ্জ, রাজশাহী। আরো উপস্থিত ছিলেন ৪ ব্যাটালিয়নের পরিচালক মুহাম্মদ মেহেদী হাসান,পিএএম, পরিচালক ৪ আনসার ব্যাটালিয়ন নওহাটা পবা রাজশাহী।

#

প্রশিক্ষণার্থীদের উদ্দেশ্যে বক্তব্য দেওয়ার সময়

এসময় মুহাম্মদ মেহেদী হাসান পিএএম সদ্য দশ দিন অস্ত্রবিহীন মৌলিক প্রশিক্ষণের উপস্থিতি সকল শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে বলেন দেশ ও জাতির কল্যাণে বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর কাজ করে যাওয়া মূল উদ্দেশ্য ও লক্ষ্য, দেশের প্রত্যেকটি সদস্যকে আমরা সন্ত্রাস মুক্ত দেশ গড়ার লক্ষ্যে প্রশিক্ষণ দিয়ে থাকি।
আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর প্রত্যেকটি প্রশিক্ষণের সরকারি সহায়তার মাধ্যমে দেওয়া হয়।
আমাদের প্রত্যেকটি প্রশিক্ষণের প্রশিক্ষণার্থীদের থাকা খাওয়া সম্পূর্ণ বাহিনীর পক্ষ্য থেকে দেওয়া হয়।

#
আমাদের বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর সদস্য গুলো স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে কাজ করে থাকে। গ্রাম পাড়া-মহল্লা আমরা প্রত্যেকটি ইউনিয়নে ১০ দিনের প্রশিক্ষণ দিয়ে থাকি এই প্রশিক্ষণের মাধ্যমে নানা রকম কর্মসূচি থাকে কৃষি সম্প্রসারণ সহ মাছ, ছাগল, গাভী সবগুলো মিলে আমাদের প্রত্যেকটি সদস্যকে এক একজন উদ্যোক্তা হিসেবে গড়ে তোলার লক্ষ্যে কাজ করে যায়।
সন্ত্রাস নির্মূলে সাহসিকতার সাথে কাজ করে যাওয়ার প্রশিক্ষণ দেওয়া হয় আমাদের বিজিবি সদস্যদের দেশের কল্যাণে এগিয়ে আসার সাহস যোগানো হয়।
আমাদের প্রত্যেকটি সদস্য সাধারণ নানা রকম অনিয়ম দুর্যোগ মোকাবেলায় কাজ করে যায়। সাধারণ মানুষকে সচেতন করে করণা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব এর কারণে দেশ যখন সংকট সময় পার করতেছে সে সময় বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর সদস্য গুলো গ্রামে গ্রামের বাড়িতে বাড়িতে মানুষদেরকে সচেতন করে যাচ্ছে এমন করে দেশের ক্রান্তিকালে সব সময় পাশে দাঁড়িয়েছে আমাদের আনসার বাহিনীর সদস্য গুলো আমরা প্রত্যেকটি সদস্যকে দেশের একজন গর্বিত নাগরিক হিসেবে তৈরি করার লক্ষ্যে কাজ করে যায় এর সদস্য যে কোন চাকরিতে ১০ পারসেন্ট কোটা থাকে ও সামাজিক অবক্ষয় বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী দের অগ্রাধিকার দেওয়া হয় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য কন্যা শেখ হাসিনার মাধ্যমে বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর প্রতিটি সদস্য আজ দেশের জন্য দেশ ও জাতির কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছে আমরা আপনাদের পাশে আছি সারাজীবন থাকবো,আপনারা সবাই সচেতন থাকবেন দেশের দুর্যোগ মোকাবেলায় প্রত্যেকটি সাধারণ মানুষের পাশে গিয়ে দাঁড়াবেন বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী আপনাদের পাশে থাকবে সব সময়।
প্রশিক্ষণ না তুই সদস্যদের তিনি আরও নানা রকম সাহায্য সংস্থায় কথা বলেন দেশ ও জাতির কল্যাণে কাজ করতে কোন সমস্যার সম্মুখীন হলে তিনি সবসময় তাদের পাশে দাঁড়ানোর আশ্বাস দেন।
আরো উপস্থিত ছিলেন, রাজশাহী জেলা কমান্ড্যান্ট জাহিদ হোসেন, জেলা কমান্ড্যান্ট আনসার ও ভিডিপি রাজশাহী।

এমরানুল হক, সহকারী পরিচালক আনসার ও ভিডিপি রাজশাহী রেঞ্জ রাজশাহী। রকিবুল হাসান, বোয়ালিয়া থানা আনসার ও ভিডিপি কমকর্তা রাজশাহী। আরও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আনসার ও ভিডিপি কর্মকর্তা ( ভারপ্রাপ্ত ) কামরুন নেসা ও উপজেলা প্রশিক্ষক আঃ জব্বার। ৩২ জন পুরুষ ও ৩২ জন নারী মোট ৬৪ জন প্রশিক্ষনার্থী দশ দিনের এ মৌলিক প্রশিহ্মন সফল ভাবে গ্রহন শেষ করেন।

২০১১-২০১৬ | কোনো সংবাদ বা ছবি অন্য কোথাও প্রকাশ করবেন না

Development: Zahidit.Com

ঘোষনাঃ
Translate »